শিক্ষা

এইচএসসি পেছানোর ‘সুযোগ নেই’, আইসিটি পরীক্ষা ৭৫ নম্বরে

আসন্ন এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা যথা সময়ে অর্থাৎ আগামী ১৭ আগস্ট থেকেই পুনঃবিন্যাসকৃত সিলেবাসের আলোকে পূর্ণ নম্বরে ও পূর্ণ সময়ে অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন শিক্ষমন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

তবে তথ্য ও যোগাযোগ(আইসিটি) বিষয়ের বিষয়ের পরীক্ষা ১০০ নম্বরে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও তা ৭৫ নম্বরে হবে। এর মধ্যে লিখিত ৫০ নম্বর (২০ এমসিকিউ, ৩০ লিখিত) আর ব্যবহারিক ২৫।

পূর্বের মানবন্টন অনুযায়ী আইসিটি বিষয়ে সৃজনশীল ৮ টি প্রশ্নের মধ্যে যেকোনো ৫ টি প্রশ্নের উত্তর করতে হতো। প্রতিটি প্রশ্নে ১০ নম্বর করে ছিলো মোট ৫০ নম্বর । এখন একজন শিক্ষার্থীকে ৩০ নম্বরের উত্তরের জন্য ৮ টি প্রশ্নের মধ্যে যেকোনো ৩ টি প্রশ্নের উত্তর দিলেই হবে।

মন্ত্রণালয়ের সাইট থেকে সংগৃহীত।
এছাড়া এমসিকিউ অংশে পূর্বে ২৫ টি প্রশ্নের উত্তর করতে হবে। এখন ২৫টি প্রশ্নের মধ্যে যেকোনো ২০টি প্রশ্নের উত্তর দিলেই হবে। প্রতিটি প্রশ্নের পূর্ণমান ১ করে।
পরিবর্তিত মানবন্টনে পরীক্ষার সময়ের পরিবর্তন আনা হয়েছে। পূর্বে ৫ টি সৃজনশীলের জন্য ২ ঘন্টা ৩৫ মিনিট বরাদ্দ থাকলেও পরিবর্তিত কাঠামোতে ৩ টি সৃজনশীলের জন্য ২ ঘন্টা সময় পাবে শিক্ষার্থীরা। এমসিকিউ অংশে ২০ টি প্রশ্নের জন্য ২০ মিনিট বরাদ্দ থাকছে অর্থাৎ মোট ৫০ নম্বরের পরীক্ষার জন্য ২ ঘন্টা ২৫ মিনিট বরাদ্দ থাকবে।

গতকাল ৮ আগস্ট ঢাকা মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ আন্ত: শিক্ষা বোর্ড সমন্বয় কমিটির সভাপতি প্রফেসর তপন কুমার সরকার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এই পরিবর্তিত মানবন্টন প্রকাশ করে বাংলাদেশ আন্ত: শিক্ষাবোর্ড সমন্বয় কমিটি।

নাজমুল হুদা/রেনেসাঁ টাইমস

আরও পড়ুনঃ  এইচএসসি পরীক্ষা পেছানোর দাবিতে শিক্ষাবোর্ডে তালা
Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *