ক্রিকেটখেলাধুলাপ্রচ্ছদ

ইমার্জিং এশিয়া কাপ সেমিফাইনাল: ভারত ‘এ’ ২১২ রানে অলআউট

এশিয়া কাপের সেমিফাইনালে ভারত ‘এ’ ২১২ রানে অলআউট হয়েছে। ফলে ফাইনাল খেলতে হলে বাংলাদেশকে করতে হবে ২১২ রান।

কলম্বোর প্রেমাদাসা স্টেডিয়ামে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ৪৯ ওভার ১ বলে অলআউট হয় ভারত।

২৯ রানে আগের ম্যাচের সেঞ্চুরিয়ান সাই সুদর্শনকে (২১) ফিরিয়ে ভারতের উদ্বোধনী জুটি ভাঙেন তানজিম হাসান সাকিব। দ্বিতীয় উইকেটে ৪৬ রানের জুটি গড়েন অভিষেক শর্মা ও নিকিন জোসে। জোসেকে (১৭) আউট করে এই জুটিটি ভাঙেন অধিনায়ক সাইফ হাসান।

এরপরই ভারতীয় ব্যাটারদের চেপে ধরেন বাংলাদেশি বোলাররা। পরের ওভারে অভিষেক শর্মাকে (৩৪) সাজঘরে ফেরান রাকিবুল হাসান। এরপর নিশাত সান্ধুকেও (৫) আউট করেন বাঁহাতি এ স্পিনার।

দারুণ এক ডেলিভারিতে ১২ রান করা রিয়ান পরাগকে বোল্ড করেন সাকিব। পরের ওভারে উইকেটকিপার ধ্রুব জুরেলকে (১) এলবিডব্লিউ করে ভারতের বিপদ বাড়ান শেখ মাহাদি হাসান। এরপর হার্শিত রানাকেও (৯) ফেরান ডানহাতি এ অফস্পিনার।

কোণঠাসা অবস্থা থেকে অধিনায়ক ইয়াশ ধুলের ব্যাটে ঘুরে দাঁড়ায় ভারত। লোয়ার অর্ডার ব্যাটারদের নিয়ে করেন তিনি। ৮৫ বলে ৬৬ রান করে শেষ ব্যাটার হিসেবে আউট হন তিনি। বাংলাদেশের শেখ মাহেদি, তানজিম আর রাকিবুল হাসান নেন দুটি করে উইকেট।

ম্যাচ শেষে অধিনায়ক ইয়াশ ধুল বলেন, “আমরা ভালোভাবে খেলতে পারিনি। শুরুটা ভালো হয়েছিল, কিন্তু এরপর বাংলাদেশের বোলাররা আমাদের চেপে ধরেন। আমি চেষ্টা করেছি দলকে ভালো করতে, কিন্তু শেষ পর্যন্ত আমরা জিততে পারিনি।”

অধিনায়ক সাইফ হাসান বলেন, “আমরা একটা চ্যালেঞ্জিং লক্ষ্য পেয়েছি। তবে আমরা আত্মবিশ্বাসী যে আমরা জিততে পারব। আমাদের বোলাররা ভালো বোলিং করেছেন, ব্যাটাররাও ভালো খেলতে পারলে আমরা জিততে পারব।”

ম্যাচটি সন্ধ্যা ৬টায় শুরু হবে।

আরও পড়ুনঃ  ইইউ মানবাধিকারবিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি ইমন গিলমোর ছয় দিনের সফরে ঢাকায়
Show More

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *